• 03513–268010/11/12

Sri Barunavo Chowdhury (Secretary)

জনগনের প্রতি বার্তা

আমি বরুনাভ চৌধুরী , মালদা জেলার অন্তর্গত ভালুকা বাজার নামে এক প্রত্যন্ত গ্রামে , আমার দীর্ঘ ২৫ বছরের অভিজ্ঞতা কে পাথেয় করে মায়ের জীবনাবাসন হওয়ার পর আমার গ্রামের এক অনুর্বর পতিত জমিতে ২০১৩ সালে এক কারিগরী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান স্থাপিত করি। আমার দীর্ঘ ২৫বছরের অভিজ্ঞতায় দেখতে পেয়েছি যে ,যাদের কাছে শিক্ষাগত যোগ্যতা আছে তাদের কোন কাজের অভিজ্ঞতা নেই এবং কারো কাজের অভিজ্ঞতা আছে কিন্তু শিক্ষাগত যোগ্যতা নেই। আমি আমার গ্রাম ও পার্শ্ববর্তী গ্রামে অর্থাৎ মালদা জেলায় বিভিন্ন কর্মপোযোগী অভিজ্ঞ ছেলে মেয়েদের সঙ্গে নিয়ে গ্রামের স্কুলছূট বেকার যুবক - যুবতীদের হাতে কলমে কাজের প্রশিক্ষন দেওয়া শুরু করি। এতে দেখতে পাই গ্রামের স্কুলছূট যুবক - যুবতীরা যেমন হাতে কলমে কাজের প্রশিক্ষন নিয়ে স্বনির্ভর হয়ে নিজের ভবিষৎ উন্নতি করে এগিয়ে চলেছে তেমন গ্রামের কর্মপোযোগী অভিজ্ঞ যুবক - যুবতীরা আমাদের প্রতিষ্ঠানে কাজের সুবিধা পেয়ে নিজেদের জীবন কে স্বচ্ছল করেছে। এছাড়াও আমাদের Placement Cell এর মাধ্যমে কিছু কারিগরী শিক্ষায় দক্ষ যুবকদের বিদেশে কর্মসংস্থানের সুযোগ করে দিচ্ছি। এরজন্য কারিগরী শিক্ষার সাথে সাথে অন্যান্য স্ব - চেতনা ও স্ব - উন্নতির শিক্ষাও আমরা প্রদান করে থাকি।

এছাড়াও আমরা সমাজে যারা কানে কম শুনতে পায় , হাঁটতে পারে না , দেখতে বা কথা বলতে পারে না , অর্থাৎ বিভিন্ন ভাবে প্রতিবন্ধী যুবক - যুবতীদের জন্যেও কারিগরী শিক্ষা প্রদানের ব্যবস্থা করছি যা তাদের অল্প পরিশ্রমে নিজের জায়গায় থেকে অর্থের দিক থেকে স্বাবলম্বী করবে। এর পাশাপাশি আমাদের প্রতিষ্ঠানের সংলগ্ন পার্শ্ববর্তী এলাকায় এক মনোরম পরিবেশে Mango Tourism ও গড়ে তুলেছি যেখানে বাইরের Tourist রা এলে Tourism সংলগ্ন জায়গা বিভিন্ন ভাবে উন্নতি হবে যার ফলে আসে - পাশের যুবক - যুবতীদের বিভিন্ন ভাবে অর্থ উপার্জনের একটা দিক তৈরী হবে।

আমাদের কোলকাতায় রাজারহাটে এন .আই .সি ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি নামে আরো এক কারিগরী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আছে , যেখানে বিভিন্ন I .T .I , Engineering Polytechnic , B - Tech , কলেজের ছাত্র - ছাত্রীদের কে Industrial Training প্রদান করে থাকি , পাশাপাশি Apprenticeship Training দিয়ে থাকি , এছাড়াও বিহারে আমাদের দুটো কারিগরী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছি যার মাধ্যমে একই ভাবে গ্রামের যুবক - যুবতীদের নিজ কর্ম দক্ষতাকে কাজে লাগিয়ে ভবিষৎ জীবনে উন্নতি কল্পে এগিয়ে নিয়ে চলেছি।

এই ভাবে সমাজের স্কুলছূট যুবক - যুবতীদের কারিগরী শিক্ষায় শিক্ষিত করে কর্মপোযোগী করে আর্থিক উন্নতি কল্পে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ায় হলো আমাদের প্রধান লক্ষ্য।

"হার মেনে নেয়ার নাম জীবন নয়,
লড়াই করে বেঁচে থাকার নামই জীবন "

সকলের প্রতি অভিনন্দন রইল,

বরুনাভ চৌধুরী (সেক্রেটারি)
অঞ্জনী ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি